শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুর প্রেসক্লাব ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট-২০২২ পরীমণির বিয়ের মেনুতে কী কী ছিল স্বামী যদি সহবাসে অক্ষম হয়, তাহলে স্ত্রীর কী করা উচিৎ? বি’ব্র’তক’র সা’দাস্রা’ব প্র’তিরো’ধে ক’রণী’য়। প্র’ত্যে’ক মে’য়ে’র জেনে রা’খা প্র’য়োজ’ন লক্ষ্মীপুরে আ. লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি পদ নিয়ে টানাটানি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে বিয়ে, যা বললেন পরীমনি ভায়াগ্রা নয়, পেঁয়াজ দিয়েই বাড়ান ৩গুণ সেক্স! এবং সহবাসে সঙ্গীকে দিন পরিপূর্ণ তৃপ্তি! শা’রী’রিক মি’ল’নে চ’র’ম আন’ন্দ পে’তে ট্রা’ই ক’রু’ন এই ভ’ঙ্গি’মা সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা ও’ষুধ-ক’নডম ছাড়াই কিভাবে জ’ন্ম নি’য়ন্ত্রণ করা সম্ভব ! বিবা’হিত দম্পতিরা জেনে রাখু’ন
বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৮:১৫ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার...

ডিভোর্সের পর দুধ দিয়ে গোসল করলেন যুবলীগ নেতা

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি / ১৪৪ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: রবিবার, ২২ আগস্ট, ২০২১

  • ডিভোর্সের পর দুধ দিয়ে গোসল করলেন যুবলীগ নেতা

প্রেম করে বিয়ে এবং অতঃপর দাম্পত্য জীবনে কলহের জের ধরে এক সন্তানসহ স্বামী-স্ত্রী ডিভোর্সের পর দুধ দিয়ে গোসল করেছেন যুবলীগ নেতা অমিত রাজ। ঘটনার পর এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। শনিবার (২১ আগস্ট) টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার ১৩ নম্বর বাঁশতৈল ইউনিয়নের অভিরামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে যুবলীগ নেতা অমিত রাজ বলেছেন, এখন থেকে আমি ও আমার পরিবার বিপদ থেকে মুক্ত। তাই দুধ দিয়ে গোসল করে নিজেকে পাপ মুক্ত করে নিয়েছি। আমার দাদী আমাকে দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে ঘরে তুলেছেন।
জানা গেছে, অমিত রাজ মির্জাপুর উপজেলার বাঁশতৈল ইউনিয়ন যুবলীগের সহ-সম্পাদক। অমিত রাজের বাবার নাম মজিবুর রহমান, গ্রামের বাড়ি বাঁশতৈল ইউনিয়নের অভিরামপুর গ্রামে। অমিত রাজ টুম্পা নামে এক মেয়ের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে চার বছর আগে বিয়ে করেন। তাদের সংসারে তারিয়ান চাঁদ (৩) নামে পুত্র সন্তান রয়েছে।
প্রেম করে বিয়ে করলেও তাদের সংসারে কলহ শুরু হয়। প্রেমের বিয়েতে ফাটল দেখা দেওয়ায় দুই পক্ষই বিপাকে পরেন। এ ব্যাপারে অমিত রাজের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পারিবারিক কলহের জের ধরে গত তিন মাস আগে টুম্পা বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। এ নিয়ে অমিত রাজ মির্জাপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করেন। কিছু দিন আগে টুম্পা বাড়ি ফিরে এসে উল্টো অমিত রাজ ও তার পরিবারের নামে টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার বরাবর নারী নির্যাতনের অভিযোগ দেন। এ নিয়ে জেলা ডিবি পুলিশ তদন্তে নামেন। ডিবি পুলিশ একাধিকবার শালিস বসেও ঘটনার সুষ্ঠু সমাধান করতে পারেনি। শনিবার টাঙ্গাইল ডিবি অফিসে উভয় পক্ষকে নিয়ে তদন্তকারী ডিবি কর্মকর্তা মোক্তার হোসেন সমাধানের জন্য শালিসে বসেন। শালিসে তিন লাখ টাকার বিনিময়ে টুম্পার ডিভোর্সের সিদ্ধান্ত হয়। নোটারি পাবলিকের মাধ্যমে ডিভোর্স হয়। যুবলীগ নেতা অমিত রাজ কোর্টের মাধ্যমে তিন লাখ টাক টুম্পাকে দিয়ে তার শিশু সন্তান তারিয়ান চাঁদকে তার বাড়ি নিয়ে আসেন।

স্বামী-স্ত্রীর ডিভোর্সের পর যুবলীগ নেতা অমিত রাজ বাড়ি ফিরে এলে তার দাদি দুধ দিয়ে গোসল করিয়ে শনিবার বিকেলে তাকে বাড়িতে তুলেন।

 


এই বিভাগের আরো খবর