শিরোনাম:
স্বামী যদি সহবাসে অক্ষম হয়, তাহলে স্ত্রীর কী করা উচিৎ? বি’ব্র’তক’র সা’দাস্রা’ব প্র’তিরো’ধে ক’রণী’য়। প্র’ত্যে’ক মে’য়ে’র জেনে রা’খা প্র’য়োজ’ন লক্ষ্মীপুরে আ. লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি পদ নিয়ে টানাটানি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে বিয়ে, যা বললেন পরীমনি ভায়াগ্রা নয়, পেঁয়াজ দিয়েই বাড়ান ৩গুণ সেক্স! এবং সহবাসে সঙ্গীকে দিন পরিপূর্ণ তৃপ্তি! শা’রী’রিক মি’ল’নে চ’র’ম আন’ন্দ পে’তে ট্রা’ই ক’রু’ন এই ভ’ঙ্গি’মা সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা ও’ষুধ-ক’নডম ছাড়াই কিভাবে জ’ন্ম নি’য়ন্ত্রণ করা সম্ভব ! বিবা’হিত দম্পতিরা জেনে রাখু’ন গাছের পাতা বিক্রি করে বছরে আয় ১২ লাখ টাকা জেগে উঠেছে সমুদ্রগর্ভের ‘ঘুমন্ত দানব’
সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২, ১২:৩০ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার...

নারীই পারে শিক্ষিত সমাজ গড়তে-জেলা প্রশাসক

বিশেষ প্রতিনিধি / ৩২৩ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২০

‘নারীই পাের শিক্ষিত সমাজ গড়তে’ বলে মন্তব্য করেছেন লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল।

বুধবার দুপুরে জেলা কালেক্টরেট প্রাঙ্গনে আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষে ‘জয়িতা অন্বেষণে বাংলাদেশ’-২০২০ শীর্ষক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

জাতীয় কবি নজরুল ইসলামের লেখা-‘বিশ্বে যা কিছু মহান-সৃষ্টি চির কল্যাণ কর, অর্ধেক তার করিয়েছে নারী-অর্ধেক তার নর’ উল্লেখ করে জেলা প্রশাসক বলেন, নারীরা পরিবারে কারো স্ত্রী, করো বোন আবার কারো মেয়ে। নারীরা সংসারে যেমন ভূমিকা রাখে তেমনি সমাজ উন্নয়নেও ভূমিকা রাখে। তাই পুরুষ শাসিত সমাজে নারীকে অবহেলার চোখে দেখা উচিত নয়। তাই সমাজে নারীর উন্নয়নে পুরুষদের অবশ্যয়ই সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে হবে।

তিনি আরো বলেন, একটি সমাজ বা সংসার উন্নয়ন যেমন শিক্ষার বিকল্প নেই। তেমনি নারী সমাজ উন্নয়ন করতে হলে নারী শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। শিক্ষিত নারীই পারে শিক্ষিত সমাজ গড়তে। শিক্ষা ও কাজের ক্ষেত্রে তাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে পুরুষদেরকেই।
নারী সমাজ উন্নয়নে সরকারও কাজ করে যাচ্ছে। সমাজের বিভিন্ন স্তরে নারীদের সফলতার স্বীকৃতি হিসেবে সমাননা দিয়ে যাচ্ছেন বর্তমান সরকার। তাই নারী উন্নয়নে তৃর্ণমূলকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানা তিনি।
লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসন ও জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের যৌথ উদ্যোগে অয়োজিত জয়িতা অনুষ্ঠানে সভাপত্বি করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ সফিউজ্জামান ভূঁইয়া। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুম, জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. নুরুল ইসলাম পাটোয়ারী।
অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে নারী উন্নয়নে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে সাফল্য অর্জন করায় ৫ জনকে জয়িতা সম্মাননা পদক ও সনদ প্রদান করা হয়।


এই বিভাগের আরো খবর