বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:০৩ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার...

ইউপি নির্বাচন আসন্ন।।ঘোলাপানিতে মাছ শিকারে নেমেছে করপাড়ার সেই বিতর্কিত সিন্ডিকেট

বিশেষ প্রতিনিধি / ৩৮ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: শনিবার, ৪ সেপ্টেম্বর, ২০২১

ইউপি নির্বাচন আসন্ন।।ঘোলাপানিতে মাছ শিকারে নেমেছে করপাড়ার সেই বিতর্কিত সিন্ডিকেট

ইউনিয়ন পরিষদের মেয়াদ শেষ হয়েছে চলতি বছরের ২৮ জুলাই। করোনার কারণে ভোট পিছালেও বিগত দুই ইউপি নির্বাচনের পূর্ব সময়ের মতো পিছিয়ে নেই বর্তমান চেয়ারম্যান মজিবুল হক মজিবের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা সেই চিহৃিত বিতর্কিত সিন্ডিকেট। ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে পরিষদের মেয়াদের শেষ পর্যন্ত পরিষদ থেকে সকল সুবিধা নিয়ে এবার নতুন চেয়ারম্যান বানানোর মিশন শুরু করেছে করপাড়ার আগামী নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাশী সিন্ডিকেটের আত্মীয় স্বজন।
জানা যায়, করপাড়া ইউনিয়ম পরিষদের ৯ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য বেল্লাল হোসেন (চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহিদ মীর্জার ভগ্নিপতি), করপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের ৭ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও তর্কিত মুক্তিযোদ্ধা লকিয়ত উল্যা (চেয়ারম্যান প্রার্থী রেজাউল করিম সেলিমের পিতা), ৪,৫,৬ নং সংরক্ষিত ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও জাতীয়তাবাদী যুবদল নেতা জুয়েলের স্ত্রী মরিয়ম আক্তার লাইজু, করপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য শাহ আলম (চেয়ারম্যান প্রার্থী তছলিম হোসেনের আত্মীয়)- এই চারজনসহ আরো চার জন ইউপি সদস্যকে জেলা পরিষদ থেকে বরাদ্ধের নামে স্বাক্ষর নিয়ে জেলা প্রশাসকের বরাবরে অসত্য তথ্য সম্বলিত আবেদন করে ৩১ আগষ্ট ২০২১ তারিখে।
উক্ত অসত্য আবেদনকে পুঁজি করে মিডিয়ার মাধ্যমে প্রচারের সুদূরপ্রসারী মিশন নিয়ে কাজ করা সিন্ডিকেট তাদের উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে কতটুকু সফল হবে তা সময়ই বলে দিবে বলে করপাড়ার সূধীমহল অভিমত ব্যক্ত করেছেন। কেননা তর্কিত মুক্তিযোদ্ধা ইউপি সদস্য লকিয়ত উল্যা ও বালু খেকো ইউপি সদস্য বেল্লাল হোসেনদের গ্রহনযোগ্যতা বিগত দিনের মতো বর্তমানেও প্রশ্নবিদ্ধ বলে এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে। মেয়াদ শেষান্তে ইউপি নির্বাচনের পূর্বে এমন সিন্ডিকেট করপাড়ায় নতুন নয় বলে এলাকায় মুখরোচক আলোচনাও চলছে।
প্রশাসনের নিকট সিন্ডিকেটের এমন আবেদন ও মিডিয়ার তৎপরতা বিষয়ে করপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের এক নেতা বলেন- পুরান বোতলে নতুন মদ নিয়ে আর কত খেলবে করপাড়াকে নরকপূরী বানানো নষ্ট সিন্ডিকেটের সদস্যরা? এই খেলা বন্ধ করে সিন্ডিকেটের সাথে সম্পৃক্তরা দলীয় প্রতীক নৌকা প্রাপ্তির জন্য জেলা ও উপজেলা আওয়ামীলীগসহ তৃণমূল নেতৃবৃন্দের উপর আস্থা রাখার জন্য তিনি আহ্বান জানিয়েছেন।


এই বিভাগের আরো খবর