বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১০:০৮ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার...

লক্ষ্মীপুরে পৃথক ঘটনায় ১৭ যুবক গ্রেফতার

এম জেড মাহমুদ / ১৪২ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: বুধবার, ৯ জুন, ২০২১

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে জুয়া খেলা ও মারামারির ঘটনায় ১৭ যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে জুয়া খেলার অপরাধে ৬ যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার দিবাগত রাতে তাদেরকে উপজেলার দক্ষিণ সাগরদী গ্রামের একট চা দোকান থেকে আটক করা হয়। সোমবার (৭ জুন) দুপুরে তাদেরকে জুয়া আইনে গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে রায়পুর থানার ডিউটি অফিসার উপ-পরির্শক রিয়াজ উদ্দিন নিশ্চিত করেছেন।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন, দক্ষিণ সাগরদী গ্রামের দেলোয়ার হোসেন, জাহিদ হোসেন, নুর হোসেন, মোঃ সোহেল, মোঃ খোকন ও মোঃ হান্নান। তারা সকলেই একই এলাকার বাসিন্দা। রাত সাড়ে এগারটার দিকে একটি চা দোকানে বসে জুয়া খেলার সময় তাদেরকে আটক করা হয় বলে জানিয়েছেন রায়পুর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক আবুল কালাম। তাদের কাছ থেকে জুয়া খেলার সরঞ্জামও উদ্ধার করা হয় বলে তিনি জানান।
গ্রেফতার হওয়া দেলোয়ার হোসেন, জাহিদ হোসেন ও নুর হোসেন বলেন, আমরা বন্ধুরা মিলে দুষ্টামির ছলে তাস খেলছিলাম। টহল পুলিশ গিয়ে আমাদেরকে ধরে নিয়ে আসে।
লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে একজনের পক্ষে মারামারি করতে গিয়ে ১১ যুবক পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছে। রোববার বিকালে উপজেলার উত্তর কেরোয়া গ্রামের সুনামগঞ্জ বাজার থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়। সোমবার (৭ জুন) দুপুরে তাদেরকে লক্ষ্মীপুর আদালতে পাঠানো হয় বলে জানিয়েছেন রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবদুল জলিল।
গ্রেফতারকৃতরা হলো, উত্তর কেরোয়া গ্রামের মোঃ সবুজ, সোনাপুর গ্রামের রাশেদ, মোঃ আমজাদ, আলভি আহমেদ, রাকিব হোসেন, মোঃ রাজন, মোঃ জিসান, মোঃ রুবেল, মোঃ ইব্রাহীম, দক্ষিণ রায়পুরের আমির হোসেন ও চর আবাবিলের মোঃ সোহেল। বয়সে এরা সকলেই ১৮-২৫ বছরের যুবক।

রায়পুর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক রিয়াজ উদ্দিন বলেন, শনিবার তুচ্ছ ঘটনায় কেরোয়ার মোঃ সবুজ ও মোঃ সফিক মিয়ার মধ্যে হাতাহাতি হয়। এ ঘটনার প্রতিশোধ নিতে রোববার বিকালে গ্রেফতারকৃত সবুজ ১০ যুবককে সাথে নিয়ে সফিকের উপর হামলার চেষ্টা চালায়। উত্তেজনাকর পরিস্থিতির মুখে গ্রামবাসী সফিককে রক্ষা করে। পুলিশ গিয়ে ঘটনাস্থল থেকে সবুজসহ ওই ১০ জনকে গ্রেফতার করে নিয়ে আসে।


এই বিভাগের আরো খবর