রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৬:০৯ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার...

সাকি ও নুরের নেতৃত্বে নতুন জোট

চলমান বাংলা ডেক্স / ৩৫২ পড়া হয়েছে:
প্রকাশের সময়: বুধবার, ২ ডিসেম্বর, ২০২০

সাকি ও নুরের নেতৃত্বে নতুন জোট

চলমান বাংলা ডেক্সঃ

দেশের রাজনীতিতে খুব শিগগিরই হয়তো নতুন একটি বিরোধী জোট আসতে যাচ্ছে। যার নেতৃত্বে থাকবেন গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর। জোটে আগ্রহী আরো কয়েকটি দলও যুক্ত হতে পারে। সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সূত্রে এমনটাই জানা গেছে।

জোট গঠনের প্রক্রিয়ায় কাজ করছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। ‘রাষ্ট্র চিন্তা’ নামে আরো এক সংগঠনকে নিয়ে তারা ইতোমধ্যে একটি যৌথ সমাবেশ করেছে। গত ২৮ নভেম্বর জাতীয় শহীদ মিনারে মাওলানা ভাসানীর মৃত্যুবার্ষিকীকে কেন্দ্র করে এটির আয়োজন করা হয়। জোট গঠনের আগে যৌথভাবে তারা আরো বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করবেন।

প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত বেশ কয়েকজন নেতা জানান, জোট গঠনের পুরো প্রক্রিয়াটি সময়সাপেক্ষ। আপাতত রাজপথে কর্মসূচি নির্ভর এবং আরো নিরীক্ষার ভেতর দিয়ে যাবে। পাশাপাশি সমমনা আরো দল যুক্ত হলে উদ্যোগটি বাস্তবে রূপ নিতে পারে।

সূত্রের দাবি, নুরুল হক নুরের নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ ছাত্র, যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদের পক্ষ থেকে ইতোমধ্যে গণসংহতি আন্দোলনকে তাদের সঙ্গে একীভূত হওয়ার প্রস্তাব দেয়া হয়েছে। যদিও দায়িত্বশীল নেতারা এ দাবি অস্বীকার করেছেন।

গণসংহতি আন্দোলনের কেন্দ্রীয় রাজনৈতিক পরিষদের অন্যতম একজন সদস্য জানান, যৌথভাবে বিভিন্ন কর্মসূচি দেয়ার ইচ্ছে আছে। জোট তৈরির সম্ভাবনাও আছে। অবশ্য নতুন দল করার বিষয়ে কোনো নেতাই উদ্যোগ নেননি।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নুর বলেন, দেশের রাজনৈতিক দলগুলো বিশেষ করে সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে নিয়ে যৌথ কর্মসূচির দিকে এগুতো চাই। সে লক্ষ্যেই চারটি সংগঠন মিলে ২৮ নভেম্বর যৌথ সমাবেশ করেছি।

তবে এখনই নতুন দল করছেন না জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা চাই গণতন্ত্র উদ্ধারে সর্বদলীয় ঐক্য এবং সেটি ছোটভাবে শুরু করেছি। আগামীতে সামনের দিকে আরো এগিয়ে যেতে পারবো বলে আশা করি।
মাওলানা ভাসানী অনুসারী পরিষদের সভাপতি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, এখনই জোট গঠন বা এসব কিছু নয়। দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে কেউই কারো সঙ্গে বসতে চায় না। সবাই একে-অপরকে সন্দেহ করে এবং কারো মধ্যে কোনো চেষ্টাও নেই। এ পরিস্থিতি থেকে বের হতে হবে।


এই বিভাগের আরো খবর